ইলেকট্রনিক্স কি কাকে বলে কত প্রকার এবং কি কি

সাইন্স টেকনোলজির বিভিন্ন শাখাতে আমরা জেনেছি ইলেকট্রনিক্স বিজ্ঞানের একটি গুরুত্বপূর্ণ আবিস্কার। বর্তমানে প্রচলিত সকল যন্ত্রের মুল চালিকা শক্তি হলো ইলেকট্রনিক্স। তাই আজ আমরা ইলেকট্রনিক্স কি কাকে বলে কত প্রকার কি কি প্রাথমিক ভাবে জানবো। তাহলে চলুন ইলেকট্রনিক্স কাকে বলে কত প্রকার এবং কি কি সংক্ষেপে জেনেনি।

ইলেকট্রনিক্স কাকে বলে :

আধুনিক বিজ্ঞান পড়তে গিয়ে আমরা জেনেছি যে, যেকোন মৌলিক পদার্থের পরমাণু গঠিত হয় মূলত তিনটি মৌলিক কণিকা দিয়ে যাদের বলা হয় ইলেকট্রন, প্রোটন, ও নিউট্রন। এদের মধ্যে প্রোটন ধনাত্বক বা পজিটিভ আধান বিশিষ্ট এবং ইলেকট্রন ঋণাত্মক নেগেটিভ আধান বিশিষ্ট। অপর পক্ষে নিউটন তড়িৎ নিরপেক্ষ এর কোন আধান নেই অর্থাৎ নিউট্রাল।  ইলেকট্রন এর ক্ষেত্রে পরমাণুতে ইলেকট্রন কণিকা গুলো মুখ্য ভূমিকা পালন করে। ইলেকট্রন যখন শূন্যস্থান বা বলা ভালো বায়ুশুণ্যস্থান বা অর্ধপরিবাহী সেমিকন্ডাক্টর গ্যাসের মধ্যে দিয়ে চলাচল করে তখন সেই ব্যাপার গুলিকে যুক্তিবিদ্যা বা ইঞ্জিনিয়ারিং এর যে শাখাতে আলোচনা করা হয় তারই নাম হলো বিদ্যুতিন বা ইলেকট্রনিক্স।

ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস কাকে বলে :

আমরা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন ইলেকট্রনিক্স সার্কিটে যে সকল আইসি বা ইন্টিগ্রেটেড সার্কিট (IC), ডায়োড (Diode), ট্রানজিস্টর (Transistor), ট্রায়োড (Triode), ক্যাপাসিটর (Capacitor), রেজিস্টার (Register), ট্রান্সফরমার (Transformer) ইত্যাদি জিনিস সাধারণ ভাবে ব্যবহার করে থাকি তাদেরকে ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস বলা হয়। আরো বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন।

ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস সার্কিট নমুনা
ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস সার্কিট নমুনা

চিত্র: ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস সার্কিট নমুনা

ইলেকট্রনিক্স কত প্রকার কি কি :

ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস সমূহ গঠন অনুসারে প্রধানত দুই প্রকার যথা-

  • ১. বাল্ব স্টেট ইলেকট্রনিক্স (Bulb State Electronics) 
  • ২. সলিড স্টেট ইলেকট্রনিক্স (Solid State Electronics)

১. বাল্ব স্টেট ইলেকট্রনিক্স (Bulb State Electronics): কোন টিউবের মধ্যে দিয়ে ইলেক্ট্রন স্রোত এক প্রান্ত থেকে অপর প্রান্তে চলে যায়। একটা টিউবের ভিতরে বায়ুশুণ্য ভ্যাকুয়াম থাকে অথবা অল্প পরিমাণে নিক্রিয় গ্যাস ভিতরে দেওয়া থাকে যেমন- ভ্যাকুয়াম ডায়োড, ট্রায়োড, থাইরেট্রন ইত্যাদি। এইসকল ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস মূলত ভ্যাকুয়াম বা কঁচের কুন্ডু দিয়ে নির্মিত। বর্তমানে এগুলো আর তেমন ব্যবহার করা হয় না।

২. সলিড স্টেট ইলেকট্রনিক্স (Solid State Electronics): এটার ক্ষেত্রে কোন টিউবের প্রয়োজন হয় না। অর্ধ পরিবাহী সেমিকন্ডাক্টার এর মধ্যে দিয়ে ইলেক্ট্রন যাতায়াত করে থাকে। যেমন- ডায়োড, আইসি ট্রানজিস্টার ইত্যাদি। বর্তমানে ইলেকট্রনিক্স এ যেগুলোর ব্যবহার বর্তমানে অনেক বেশি হয়ে থাকে।

আজকের বেসিক আলোচনাতে আমরা জানলাম ইলেকট্রনিক্স কি কাকে বলে কত প্রকার কি কি, ধিরে ধিরে আমরা ইলেকট্রনিক্স এর প্রতিটা ডিভাইস সম্পর্কে জানবো। সুতরাং ইতিমধ্যে ইলেকট্রনিক্স এর অনেক বিষয় পাবলিশ করা হয়েছে মেনুতে খোঁজ করুন আর লিখাটি ভালো লাগলে লাইক কমেন্ট এবং শেয়ার করুন। গ্রুপে জয়েন করে নতুন নতুন তথ্য জানুন।

Leave a Reply

DMCA.com Protection Status
error: Content is protected !!