ফ্রিজ থেকে পানি পড়ার কারণ | কিভাবে ফ্রিজ হতে পানি পড়া বন্ধ করবেন

ফ্রিজ থেকে পানি পড়ার কারণ সম্পর্কে আজ আমরা বিস্তারিত ভাবে জানবো। অনেকেই আছে ফ্রিজ থেকে পানি পড়লে চিন্তায় পড়ে যায়। তবে এটা তেমন কোন জটিল সমস্যার বিষয় না। একটু সচেতন হলে এসমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। তাহলে চলুন ফ্রিজ থেকে পানি পড়ার কারণ গুলো জেনে ফেলি।

সাধারণত যে কারণে ফ্রিজ থেকে পানি পড়ে :

  • ফ্রিজের কম্পোসারের উপরে থাকা রিজেক্ট পানির পাত্র ভর্তি হয়ে গেলে।
  • ফ্রিজের ভিতর থাকা আউটলাইন সাকশান পাইপ জ্যাম হয়ে গেলে।
  • ফ্রিজের ডিপ অংশ এবং নরমাল অংশের সংযোগ স্থল লিকেজ হলে।
  • ফ্রিজকে অতিরিক্ত মাত্রায় রেগুলেটর ভলিউম সেট করে ওভারলোড করলে।
ফ্রিজ থেকে পানি পড়ার কারণ

ফ্রিজের কম্পোসারের উপরে থাকা রিজেক্ট পানির পাত্র ভর্তি হয়ে গেলে:

প্রতিটা ফ্রিজের কম্পোসরের উপরে একটা আউটলাইন রিজেক্ট পানির পাত্র থাকে যাকে আপনার ফ্রিজ হতে নির্গত পানি সংরক্ষণাগার বলতে পারেন। ফ্রিজ হতে আউট লাইনের পানি জমে কোথায় যায়? আসলে ফ্রিজ হতে বরফ গলে যে পানি বের হয় তা ফ্রিজের কম্পোসার ঠান্ডা রাখার জন্য ব্যবহার করা হয়। যা পানির পাত্রটি কম্পোসারের উপরে স্থাপন করা হয়ে থাকে এবং কম্পোসার গরম হলে সেই পানি বাস্প হয়ে যায়। এভাবে প্রতিদিনের পানি প্রতিদিন শুকিয়ে যায় আবার নতুন পানি এসে জমে।

যদি কোন কারণে ফ্রিজের পানি না শুকায় তাহলে সেই পানি ওভার হয়ে নিচ দিয়ে বের হতে থাকে। যা আমরা বিভিন্ন চিন্তার কারণ বলে মনে করে থাকি। আপনি যদি ঘনঘন ফ্রিজের দরজা খুলেন তাহলে বরফ গলতে থাকে নন-ফোষ্ট ফ্রিজে ডিপ চেম্বারের অতিরিক্ত খাবার রাখার কারনে বাতাস ছড়াতে পারেনা কুলিং চেম্বারে বরফ জমতে থাকে পরবর্তীতে হিটার অন হয়ে সেই বরফ গলতে থাকে, সে কারণে পানির বেশি বের হতে থাকে। (নন-ফোষ্ট ফ্রিজ হলো: যে ফ্রিজের ভিতরে বডিতে বরফ জমে থাকে)

ফ্রিজের ভিতর থাকা আউটলাইন সাকশান পাইপ জ্যাম হয়ে গেলে:

ফ্রিজের নরমাল অংশে একটা পাইপ থাকে যা বেশির ভাগ সময় ফোষ্ট ফ্রিজে দেখা যায়। (ফোষ্ট ফ্রিজ হলো: যে ফ্রিজের ভিতরে বডিতে বরফ জমে না) ফোষ্ট ফ্রিজের পিছনের অংশে ইউ আকৃতির গ্রুপ এর শেষের দিকে সংযোগ করা থাকে। নন-ফোষ্ট ফ্রিজেরকুলিং অংশের ভিতরে এই পাইপটা থাকে যা দেখা যায়না। অনেক সময় খাবারের টুকরো গিয়ে এই পাইপকে জ্যাম করে দেয় তখন কুলিং চেম্বার খুলে পাইপটা পরিষ্কার করতে হয় যা বেশ কষ্ট সাধ্য ও জটিল একট কাজ। ফ্রিজ বন্ধ করার ২০ মিনিট পর ফ্রিজের পেছনের ওয়াটার পাত্রের পানি জমতে দেখেন তা হলে বুঝবেন আউটলাইন ঠিক আছে জ্যাম হয়নি।

ফ্রিজের ডিপ অংশ এবং নরমাল অংশের সংযোগ স্থল লিকেজ হলে:

বেশির ভাগ সময় ফ্রিজের ডিপ অংশ এবং নরমাল অংশের সংযোগ স্থল লিকেজ হয়ে যায়  তখন ফ্রিজের দরজার দিক দিয়ে বরফ গলে পানি পড়ে। সেক্ষেত্রে ফ্রিজের ডিপ অংশখুলে ভালো ভাবে রাবার দিয়ে লিকেজটা ঠিক করে দিতে পারলে আর পানি বের হবেনা।

ফ্রিজকে অতিরিক্ত মাত্রায় রেগুলেটর ভলিউম সেট করে ওভারলোড করলে:

সবচেয়ে বেশি যে কারণে পানি পড়ে তাহলে ফ্রিজকে অতিরিক্ত মাত্রায় রেগুলেটর ভলিউম সেট করে ওভারলোড করে দিলে। আপনার ফিজের বডিতে ফোটা ফোটা ঘামের মত পানি লেগে থাকলে বরফ জমে থাকলে বা ফ্রিজের কোন পাশ দিয়ে বাতাস রেব হলে বুঝতে হবে আপনার ফ্রিজে টেম্পারেচার ওভারলোড হয়েছে। ভালো করে দেখবেন আপনার নরমাল অংশের গায়ে যদি পানি জমে বরফ হয়ে যায় তাহলেও ওভারলোড বুঝবেন। সেক্ষেত্রে ফ্রিজের রেগুলেটর কমিয়ে দিতে হবে।

ফ্রিজের ভিতরে একটা সেন্সর থাকে যা ফ্রিজের তাপ মাত্র নিয়ন্ত্রন করে ফ্রিজ কে প্রয়োজন মতো অন-অফ করে যদি কোন কারণে ফ্রিজের ভিতরে থাকা সেই সেন্সর খারপ হয়ে যায় তাহলে ফ্রিজ ঠিক সময় মত অন-অফ হতে পারবে না। তখন ফ্রিজে নানা রকম সমস্যা দেখা দিবে যেমন- আতিরিক্ত মাত্রায় বরফ জমে যাবে আবার ঠিক মত বরফ জমবে না। এটা সেই সেন্সর সমস্যার কারণে হয়ে থাকে।

কিভাবে ফ্রিজ হতে পানি পড়া বন্ধ করবেন :

ফ্রিজে পানি পড়া বন্ধ করতে হলে আপনাকে উপরোক্ত বিষয় গুলোর দিকে খেয়াল রাখতে হবে তাছাড়াও বেশির ভাগ ফ্রিজ ব্যবহার কারী ফ্রিজে মাংশ বা খাদ্য ইত্যাদি বেশি করে লোড করে তাড়াতাড়ি ঠান্ডা করার জন্য ফ্রিজের পাওয়ার বাড়িয়ে দেয় যার ফলে সমস্যা গুলো হয়। ফ্রিজের পাওয়ার বাড়িয়ে দিলে ফ্রিজ তাড়া-তাড়ি ঠান্ডা হয় কিন্তু ফ্রিজের বিভিন্ন সমস্যার সৃষ্টি হয় বরফ জমে অতিরিক্ত মাত্রায়। তার পরবর্তীতে যখন ফ্রিজ বন্ধ থাকে তখন সেই বরফ গলে পানি ওভার লোড হয়।

আর ফ্রিজ বার বার খুলা থেকে বিরত থাকবেন অতিরিক্ত মাত্রায় পাওয়ার দিবেন না। ফ্রিজে গাদা-গাদি করে খাবার, মাংশ, শব্জি ইত্যাদি রাখবেন না। দরকার হলে মাঝে মাঝে পিছনের পানির পট থেকে ভর্তি ট্যাংক টি সাবধানতার সাথে খালি করে দিবেন। তাহলে ফ্রিজ হতে পানি পড়া সমস্যাই হবেনা। কোন কিছু জানার থাকলে কমেন্ট করুন। ফ্রিজের আরো বিভিন্ন সমস্যার সমাধান জানতে এখানে ক্লিক করুন

6 Comments

  1. সুলতানা September 4, 2019
  2. Abraham September 5, 2019
  3. Sbobet September 5, 2019

Leave a Reply

error: Content is protected !!