অনলাইনে আয় করার সহজ উপায়

অনলাইনে আয় করার সহজ নিশ্চিত উপায় ২০২০

আজ আমরা জানবো অনলাইনে আয় করার সহজ নিশ্চিত উপায় গুলো সম্পর্কে বিস্তারিত। এজন্য আমি বিভিন্ন অনলাইন মার্কেট প্লেস থেকে বাছাই করে সেরা আয়ের উপায় গুলো নিবার্চন করেছি যেগুলো অনলাইনের সেরা জব হিসাবে পরিচিত। আপনি এগুলোর মধ্যে যেকোন একটি জব নিবার্চন করে অনলাইনে সহজে আয় করতে পারেন এবং নিজ ক্যারিয়ার গড়তে পারেন। তাহলে চলুন আর কথা না বাড়িয়ে অনলাইনে আয় করার সহজ উপায় গুলো জেনেনি।

সূচীপত্র

ইউটিউবে চ্যানেল করে আয় :

(Youtubing Job) ইউটিউবিং করা হলো- আপনি যে বিষয়ে দক্ষ সেটা নিয়ে নিয়মিত ভিডিও তৈরী করে একটা চ্যানেল বানিয়ে সেখানে পাবলিশ করার মাধ্যমে টাকা আয়ের একটা পথ তৈরী করা। যেমন- এডসেন্স, অ্যাফিলিয়েট ইত্যাদি করা যায়। এজন্য আপনাকে ইউটিউবের সকল নিয়ম কানুন মেনে ভিডিও তৈরী করে নিয়মিত পাবলিশ করতে হবে এবং দিনে দিনে চ্যালের ভিডিও, ভিউ ও সাবস্ক্রাইবার বৃদ্ধি করতে হবে।

ব্লগিং করে টাকা ইনকাম :

(Google Adsence Job) আপনি যদি ব্লগিং করতে এক্সপার্ট হন, বা কোন বিষয় নিয়ে লেখা-লেখি করতে পছন্দ করেন, তাহলে ব্লগিন শুরু করতে পারেন। ব্লগিং এর মাধ্যমে আপনি বিভিন্ন ভাবে ইনকাম করতে পারেন, তার মধ্যে অন্যতম হলো গুগল এডসেন্স এবং অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং। আপনি আপনার ব্লগে যদি ভিজিটরের চাহিদা অনুযায়ী নিয়মিত কনটেন্ট পাবলিশ করতে পারেন, তাহলে সেখানে ভিজিটর এবং ইনকামের অভাব হবে না।

গুগল ওয়েব মাস্টার রিলেডট জব :

(Google Webmaster Job Job) গুগল ওয়েব মাস্টার হলো ওয়েবসাইটের সাথে সার্চইঞ্জিন বটের যোগাযোগ মাধ্যমের সকল কার্যক্রম দেখার ড্যাশর্বোডঅ। যার মাধ্যমে ওয়েবসাইটের মালিকগণ তাদের সাইটের সমস্যা গুলো দেখতে পাই। যে সমস্যা গুলো সমাধান করার জন্য অনলাইন মার্কেট প্লেসে বিভিন্ন জব পোস্ট করে থাকে। ইউটিউবের কয়েকটা ভিডিও দেখেই খুব সহজে যেটা আপনি শিখে অনলাইনে কাজ শুরু করতে পারেন।

ওয়েব এনালাইটিক্স রিলেটড জব :

(Google Analitics Job) ওযেব সাইটের বিভিন্ন তথ্য দেখার জন্য গুগল এনালাইটিক্স এর ব্যবস্থা গুগল করে দিয়েছে। যার মাধ্যমে ওয়েবসাইটের সকল রিপোর্ট তথ্য দেখা যায় এবং সেগুলো বুঝে ওয়েবসাইট মার্কেটিং বা বিভিন্ন ক্যাম্পেইন পরিচালনা করা হয়ে থাকে। যেগুলো বেশির ভাগ কোম্পানির নিজে করার সময় থাকে না। এজন্য বিভিন্ন লোক অনলাইনে হয়ার করে রিপোর্ট এনালাইসিস করে থাকে। আপনি যদি এসব এনালাইসিস করতে পারেন তাহলে অনলাইনে আপনার জন্য অনেক জব অপেক্ষা করছে।

ফেইসবুক পেইড ক্যাম্পেইন জব :

(Facebook Paid Campain Job) প্রতিদিন অনেক বেশি মানুষ ফেইসবুক বা বিভিন্ন সেস্যাল মিডিয়াতে একটিভ থাকার কারণে বিভিন্ন কোম্পানি এসব সোস্যাল মিডিয়াতে বিভিন্ন পেইড ক্যাম্পেইন করে থাকে। যেগুলো অপারেট করতে দক্ষ লোকের প্রয়োজন হয়ে থাকে। এজন্য তারা অনলাইনে জব পোস্ট করে দক্ষ এক্সপার্ট হায়ার করে তাদের কাজ দিয়ে থাকে। আপনি যদি এসব ক্যাম্পেইন সম্পর্কে বুঝেন তাহলে আপনার জন্য অনলাইনে অনেক কাজ অপেক্ষা করছে। সুতরাং সুযোগ বুঝে মার্কেটে নেমে পড়তে পারেন।

ফেইবুক পেইজ রিলেটেড জব :

(Facebook Page Job) ফেইবুক পেইজ হলো ওয়েবসাইটের মত একটা অনলাইনে আয়ের উৎস। ফেইসবুকে প্রবেশ করলে আমাদের সামনে বিভিন্ন কোম্পানির পেইজ অফার নিয়ে এসে হাজির হয়ে যায়। হয়ত অনেকই দেখেছেন। এসব পেইজ পরিচালনার জন্য কোম্পানির দক্ষলোক প্রয়োজন হয়ে থাকে। সুতরাং আপনি যদি ফেইসবুক পেইজ সম্পর্ক বুঝে থাকেন তাহলে অনলাইনে এসব জবের জন্য আবেদন করতে পারেন।

ফেইবুক গ্রুপ রিলেটেড জব :

(Facebook Group Job) আপনি চাইলে ফেইসবুকে একটা গ্রুপ করে আয় করতে পারেন। গ্রুপ তৈরী করার পর সেখানে ধীরে ধীরে লোক সংখ্যা বুদ্ধি করতে হবে আপনার গ্রুপ যদি অনেক বড় হয় এবং সদস্য সংখ্যা অনেক বেশি করতে পারেন। তাহলে সেখান থেকে বিভিন্ন ভাবে আয় করতে পারবেন। ফেইসবুকে অনেক গ্রুপ আছে যেখানে মিলিয়ন মিলিয়ন সমস্য রয়েছে। যেগুপের এডমিনের কত টাকা আর্নিং করে আপনি হয়ত কল্পনাও করতে পারবেন না। সুতরাং আর দেরি করবেন না আজ থেকে লেগে পড়ুন।

ওয়েব ডেভলপমেন্ট করে আয় :

(Web Development Job) আপনি একজন দক্ষ ওয়েব ডেভেলপর হয়ে প্রচুর টাকা ইনকান করতে পারেন। এজন্য আপনাকে ব্যাক ইন অথবা ফন্ট ইন যেকোন একটা ওয়েব ডেভলপমেন্ট শিখে নিতে হবে, তাহলে আপনি অনলাইনে কাজ করে ঘরে বসে ভালো মানের আয় করতে পারবেন। অনলাইনে বিভিন্ন সাইটে ওয়েব ডেভলপারের অনেক চাহিদা। তাই আপনি যদি ওয়েব ডেভলমেন্ট শিখতে পারেন তাহলে ঘরে বসেই অনেক আয় করতে পারবেন।

পাইথুন ডেভলপার হয়ে আয় :

(Pythun Developer Job) পাথুন ওয়েব ডেভলমেন্ট এর জগত কে বদলিয়ে দিতে এবং আর্টিফিসিয়াল কনসেপ্ট নিয়ে ওয়েবসাইট তৈরীতে বিশেষ ভূমিকা রাখছে। একটা রিপোর্টে দেখা গিয়েছে আগামী 50 বছর পাইথুন ওয়েব সাইট ডেভলপমেন্ট সেক্টরকে দখল করে রাখবে। যেখানে পিএইচপি আর মাত্র কয়েক বছর রাজত্ব করবে। এজন্য এখন পিএইচিপি থেকে পাইথুন শেখা অনেক ভালো বলে আমি মনে করি।

গ্রাফিক্স ডিজাইন করে টাকা আয় :

(Graphics Designing Job) বর্তমানে গ্রাফিক্স নেই এমন কোন সেক্টর নেই বলেলেই চলে। কারণ গ্রাফিক্স এর মাধ্যেমে বিভিন্ন সেক্টরে তাদের বিজনেসে এগিয়ে চলেছে। যেমন- লোগো ডিজাইন, ব্যানার কাভার পিএসডি, প্রোডাক্ট ইত্যাদি। আপনি অ্যাডবি ফটোশপ এবং ইলাস্ট্রেটর ভালো ভাবে শিখে অনলাইনে যেকোনো একটির কাজ করে হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন।

অ্যানিমেশন রিলেটেড জব করে আয় :

(Animation Cartoon Job) বর্তমানে গ্রাফিক্স এর জগতে এ্যানিমেশন অনেক জনপ্রিয় একটা সেক্টর যার চাহিদা দিনে দিনে বেড়েই চলেছে। যেমন- কাটুন ভিডিও ইত্যাদি। আপনি চাইলে এ্যানিমেশন শিখে অনলাইনে হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন। অনলাইন মার্কেট ঘুরে দেখুন এ্যনিমেশনের কি পরিমাণে চাহিদা রয়েছে তাহলেই বুঝতে পারবেন।

অডিও ভিডিও এডিটিং করে আয় :

(Audio Video Editing Job) অনলাইন মার্কেট ঘুরে দেখলে দেখতে পাবেন ডিজিটাল মিডিয়াতে অডিও ভিডিও এডিটরের কি পরিমাণে অভাব রয়েছে। তাই আপনি চাইলে একজন অডিও ভিডিও এডিটর হিসাবে কাজ করে অনলাইন প্রতি মাসে হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন। আর অডিও ভিডিও এডিটিং কাজের কোন দিন অভাব হবে না।

আর্টিকেল রাইটার হিসাবে চাকুরী :

(Article writing Job) বর্তমানে বিশ্বের প্রতিটা ওয়েবসাইটে ব্লগে, পোর্টালে বিভিন্ন ভাষার আর্টিকেল দরকার হয়। তাই আপনি আর্টিকেল রাইটার হিসাবে অনলাইনে সহজে বিভিন্ন কোম্পানির অথবা নিজের আর্টিকেল লিখে প্রচুর টাকা আয় করতে পারেন। যেমন আইরাইটার, ফ্রিলান্সার, আপওয়ার্ক ইত্যাদি সাইটে একাউন্ট করে নিজের আর্টিকেল সেল করতে পারেন।

সিপিএ মার্কেটিং করে টাকা আয় :

(CPA Marketing Job) CPA সিপিএ অর্থ ক্রস পার অ্যাকশন। মানে প্রতি ক্লিকে টাকা আয়ের একটা সিস্টেম। যার উপর ইউটিউবে হাজারো ভিডিও আছে সেখান থেকে বিস্তারিত জেনে নিয়ে আনলাইনে প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারেন। যেটা সবাই করছে তাবে আপনার প্রতিটা কাজের জন্য ধর্য থাকতে হবে তাহলে সফল ভাবে আয় করতে পারবেন।

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা আয় :

(Affiliate Marketing Job) অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং হলো অনলাইনে অন্যের ওয়েবসাইটের প্রডাক্ট সেল করে কমিশন নেওয়াকে বলে। অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং আপনি দুই ভাবে করতে পারেন। যেমন- একট নিজের ব্লগ ওয়েবসাইট করে, আরেকটা হলে ইউটিউবে অথবা ফেইসবুকে ভিডিও কনটেন্ট তৈরী করে শুরু করতে পারেন। তবে তাদের কিছু কনডিশন আছে যেগুলো পুরণ করে অ্যামাজন, ইবে, আলি এক্সপ্রেস, ফ্লিপকাট ইত্যাদিতে অ্যাফিলিয়েট শুরু করতে পারেন।

এস.ই.ও চাকুরী করে টাকা আয় :

(SEO Job) অনলাইনে চাকুরী গুলোর মধ্যে বর্তমানে সবচেয়ে ডিমান্ডেবল চাকুরী হলো এসইও আর ভবিষ্যতেও এর ডিমান্ড থাকবে। এসইও হলো অর্গানিক ভাবে ওয়েবসাইটে ভিজিটর আনার পদ্ধতি কে বলে। যেটা আপনি ক্লায়েন্ট এর হয়ে করে দিবেন। তার বিনিময়ে আপনাকে সে টাকা পেমেন্ট করবে। আপনি অনলাইন মার্কেট গুলো ভিজিট করে দেখলে বুঝতে পারবেন কি পরিমাণে এসইও কাজ সেখানে পাওয়া যায়। যেমন- আপওয়ার্ক, ফ্রিলান্সার, ফাইভার ইত্যাদি মার্কেটপ্লেসে এস.ই.ও করে অনেক ইনকাম করতে পারেন।

নিদিষ্ট কোম্পানির অ্যাফিলিয়েট করে আয় :

(Individual Affiliate Marketing Job) এটাও একটা ভালো আর্নিং সোর্স। উপরে আপনাকে বলা হয়েছে যেটা সেটা হলো আপনি আনলিমিটেড সাইটের জন্য অ্যাফিলিয়েট করার করতে পারবেন। কিন্তু আপনি চাইলে কোন নিদির্ষ্ট কোম্পানির হয়ে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করেও অনেক টাকা আয় করে নিতে পারেন।

ডাটা এন্ট্রি চাকুরী করে টাকা আয় :

(Data Entry Job) অনলাইনে ডাটা এন্ট্রি রিলেটেড কাজ অনেক পাওয়া যায়। যেমন- এক্সেল সিটে বা ওয়েব ডাটা বেইসে তথ্য আপডেট বা লিস্ট করার মাধ্যমে আপনি সহজেই অনেক টাকা ইনকাম করতে পারেন। আবার বিভিন্ন পিডিএফ থেকে ওয়ার্ড ফাইল বা ওয়ার্ড থেকে এক্সেল শিটে কনভার্ট করার মাধ্যমে অনলাইনে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারেন। যেগুলো উপর বর্তমানে অনেক কাজ পাওয়া যায়।

ছবি তোলা চাকুরী করে টাকা আয় :

(Stock Photography Job) অনলাইনে বিভিন্ন ওয়েবসাইট আছে যেখানে ছবি তুলে আপলোড দিতে হয়। আর আপনার ছবি যদি কেউ ডাউনলোড করে তখন আপনি সেখান থেকে ডাউনলোড প্রতি নির্দিষ্ট পরিমাণে টাকা আপনার একাউন্টে জমা হতে থাকবে। তার মধ্যে ফ্রি-পিক, স্টক ফটো সহ গুললে সার্চ করলে অনেক সাইট পেয়ে যাবেন। আর আপনি যদি ভালো ছবি তুলতে পারেন তাহলে অনলাইনে আপনার অনেক আয়ের সম্ভবনা রয়েছে।

লেখার রিভিউ দিয়ে অনলাইনে টাকা আয় :

(Writing review Job) অনলাইন মার্কেট প্লেস গুলোতে জব সার্চ করলে দেখবেন সেখানে রিভিউ রিলেটেড অনেক কাজ পোস্ট করা হয়েছে। আপনি যদি কাজটা জেনে থাকেন তাহলে সেখান থেকে কাজ গুলো নিয়ে ঘরে বসে প্রতিমাসে অনেক টাকা অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারেন। এ কাজ অনেকেই করে স্মার্ট আয় করছে।

অনলাইনে সার্ভিস সেল করে টাকা আয় :

(Freelancing Gig Job) আপনি যদি ছোট্ট একটা কাজও পারেন তাহলে সেটা অনলাইনে সেল করে টাকা আয় করতে পারেন। তার মধ্যে এমন একটা মার্কেট ওয়েবসাইট হলো ফাইভার। সেখানে আপনার কাজের উপর গিগ তৈরী করে সেটা বিক্রয় করে প্রতিদিন প্রতিমানে অনেক টাকা আয় করতে পারেন। বর্তমানে বাংলাদেশ হাজার হাজার ফ্রিলান্সার ফাইভারে কাজ করছে আপনি যদি কিছু পেরে থাকেন। তাহলে আজই ভাইভার ডট কম ঘুরে দেখুন।

লিংক শর্ট সার্ভিস দিয়ে টাকা আয় :

(URL shortner Job) অনলাইনে বিভিন্ন সার্ভিসের মধ্যে আপনি ইউআরএল শর্ট সার্ভিস দিয়েও ইনকাম করতে পারেন এজন্য আপনি গুগল শর্টনার এবং বিটলি ইউআরএল শর্টনার দিয়ে কাজ করে অনলাইনে টাকা আয় করতে পারেন।

ওয়েব সাইটের সমাধান দিয়ে টাকা আয় :

(Web Solution Job) বিশ্বে এখন লক্ষ লক্ষ ওয়েবসাইট আছে আর প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। আপনি যদি একট ওয়েব সল্যুশনে এক্সপার্ট হতে পারেন তাহলে আপনার কাজের অভাব হবে না। কারণ প্রতিদিন অনেক মানুষ ওয়েবসাইটের বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে জব পোস্ট করে। যেগুলো নিয়ে আপনি সমাধন করে হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন।

এন্ড্রয়েড এপস্ তৈরী করে টাকা আয় :

(Android App Development Job) ওয়েবসাইটের সাথে সাথে এখন মোবাইল এ্যাপের চাহিদা দিনে দিনে বেড়েই চলেছে। আপনি যদি এপস্ তৈরী করতে পারেন তাহলে অনলাইনে এপ তৈরীর সার্ভিস দিয়ে প্রতি মাসে হাজার হাজার ডলার অনায়াসে ইনকাম করতে পারেন। মোবাইল এপ তৈরীর উপর ইউটিউবে অনেক চ্যানেল আছে সেখান থেকে ফ্রিতে এপ তৈরী শিখে কাজে নেমে পড়তে পারেন।

সফ্টওয়্যার ম্যানেজমেন্ট করে টাকা আয় :

(Software Development Job) এখন প্রায় প্রতিটা কোম্পানি তাদের নিজেস্ব সফ্টওয়্যার ব্যবহার করছে । আর আপনি যদি কোন কোম্পানির সফ্টওয়্যার ডাটাবেইজ ম্যানেজমেইন্ট করতে পারেন তাহলে আপনার জন্য রয়েছে অনেক চাকুরী। যেগুলো ঘরে বসে অনলাইনে করা সম্ভব। তাই এ সকল সফ্টওয়্যার ম্যানেজমেন্ট শিখে নিয়ে অনলাইনে ইনকামের উদেশ্যে কাজ শুরু করতে পারেন।

সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং করে টাকা আয় :

(SEM Job) সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং মানে অনলাইনে যেসব টুলস্ বা ওয়েবসাইটে মানুষ সার্চ করে প্রয়োজনীয় তথ্য খুঁজে বের করে যেমন- গুগল, ইউটিইব, বিং, ইয়াহু, বাইদু, ইয়ানডেক্স ইত্যাদি। এ সকল সার্চ ইঞ্জিনে নিজের কনটেন্ট পাবলিশ করে মার্কেটিং করার মাধ্যমে অনলাইনে অনেক টাকা ইনকাম করা সম্ভব।

ইমেইল মার্কেটিং করে টাকা আয়:

(Email Marketing Job) আপনি যদি খেয়াল করে দেখবেন প্রতিটা ওয়েবসাইটে ইমেল দেওয়ার স্থান থাকে বা ইমেল নেওয়া হয়। যেগুলোর মাধ্যমে ইমেইল মার্কেটিং করা হয়ে থাকে। আপনি যদি ইমেল কালেকশন করতে এক্সপার্ট হন তাহলে অনলাইনে ইমেল ক্রয় করে এমন হাজারে সাইট আছে যেখানে আপনার কালেক্ট করা ইমেইল গুলো বিক্রয় করে টাকা আয় করতে পারেন। যেগুলো ক্রয় করে তাদের কোম্পানির পণ্য গুলো প্রামোশন করে থাকে।

ইমেইল বিক্রয় করে টাকা আয় :

(Email listing deta Job) আপনি ইমেইল সংগ্রহ করে তার লিস্ট তৈরী করে  মার্কেটেরদের কাছে বিক্রি করে হাজার হাজার টাকা আয় করতে পারেন। যেটা উপরে বলা হয়েছে একই নিয়মে কাজ করে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারবেন। ইমেইল মার্কেটিং সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে ইউটিউবে বিভিন্ন ভিডিও আছে দেখতে পারেন তাহলে বিষয়টা আপনার পরিস্কার হয়ে যাবে।

সেস্যাল মিডিয়া মার্কেটিং করে আয় :

(Social Media Marketing Job) সোস্যাল মিডয়া হলো ফেইসবুক, টুইটার, পিন্টারেস্ট, লিংকিন, ইনস্ট্রাগ্রাম ইত্যাদি। প্রতিদিন এসব স্যেস্যাল মিডিয়াতে বিলিয়ন বিলিয়ন লোক একটিভ থাকে। যার ফলে বিভিন্ন কোম্পানি এসব প্লাটফরমকে তাদের মার্কেটিং করার কাজে ব্যবহার করছে। যেজন্য এসব স্যোস্যাল মিডিয়াতে মার্কেটার হিসাবে বিভিন্ন বিভিন্ন কোম্পানি জব চাকুরী অফার করছে। আপনি যদি এসব সোস্যাল মিডিয়াতে একটিভ থাকেন তাহলে মার্কেটিং শিখে সহজে ঘরে বসে সোস্যাল মিডিয়া মার্কেটার হিসাবে অনলাইনে কাজ করতে পারেন।

ডোমেন ক্রয়-বিক্রয় করে টাকা আয় :

(Domain Flipping Job) আপনি ডোমেন ক্রয় বিক্রয় করার মাধ্যমে হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন। এজন্য আপনাকে মেমোরেবল ছোট সুন্দর সুন্দর ডোমেইন নাম কিনে রাখতে হবে যেটা পরবর্তীতে অনেক ভ্যালুয়েবল হলে বাজার দরে বিক্রয় করতে পারবেন। আপনি যদি ভালো ও সুন্দর নাম দেখে ডোমেইন কিনে রাখতে পারেন। তবে সেই ডোমেইন আপনি ১০ থেকে ২০ গুন দামে বিক্রি করতে পারবেন।

ওয়ার্ডপ্রেস প্লাগিন এক্সপার্ট হয়ে আয় :

(WordPress Plugins Job) অনলাইনে বিভিন্ন কোম্পানি আছে তারা তাদের ওয়েবসাইটের জন্য ওয়ার্ডপ্রেস প্লাগিন এক্সপার্ট খুঁজে থাকেন। ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের প্লাগিন এডিট করে ব্যবহার করার জন্য প্লাগিন ডেভলপার হায়ার করে থাকে। যেগুলো ওয়েবসাইট ডিজাইন এর ক্ষেত্রে বিভিন্ন কাজে লাগে। তাই আপনি ওয়ার্ডপ্রেস প্লাগিন এক্সপার্ট হয়েও অনলাইনে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারেন।

ওয়েবসাইট বিক্রয় টাকা আয় :

(Website Flipping Job) আপনি যদি ওয়েবসাইট তৈরী করে, কিছু কনটেন্ট দিয়ে, কিছুটা এসইও করে, সাইট রেডি করে, মার্কেটিং করেন তাহলে অনেক টাকা আয় করতে পারেন যেটা অনেকেই করছে। কাজটা ডোমেইন ফ্লিপিং এর মত কিন্তু এক্ষেত্রে আপনাকে একটি ওয়েবসাইটে ভালো কনটেন্ট দিয়ে SEO করে ভালো ট্রাফিক আনতে হবে। তাহলে আপনি ২০ থেকে ৩০ গুন বা তার থেকে বেশি দামে ওয়েবসাইট বিক্রয় করতে পারবেন।

কোডিং সমাধান দিয়ে টাকা আয় :

(Coding Services Job) অনলাইনে কোডিং সমস্যা নিয়ে বিভিন্ন জব পোস্ট হয়ে থাকে যেগুলো সবাই সমাধান করতে পারে না। আপনি যদি কোর্ডং এক্সপার্ট হতে পারেন তাহলে কোডিং সমাধান করেও হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন। এজন্য আপনাকে কোডিং করা এবং সমস্যা হলে সমাধান করার ক্ষমতা থাকতে হবে।

পি.এইচ.পি ডিজাইন করে টাকা আয় :

(Web Designing with PHP Job) বর্তমানে বেশির ভাগ ওয়েবসাইট পি.এইচ.পি দিয়ে ডেভলপ করা হচ্ছে । পি.এইচ.পি তে কোডিং করে ওয়েব ডিজাইন করতে পারলে যেসব সাইট এইচটিএমএল দিয়ে করা হয়ে থাকে সেগুলো কে ডাইনামিক করার জন্য অনলাইনে বিভিন্ন জব পোস্ট করা হয়। আপনি চাইলে শুধু পিএইচপি ডেভলপার হিসাবে অনলাইনে হাজার প্রতিষ্ঠানে কাজ করতে পারেন।

মোবাইলের এপস্ তৈরী করে আয় :

(Developing Mobile Apps Job) এখন এমন কোন মানুষ নেই যার একটি এন্ড্রয়েড মোবাইল নাই। এজন্য দিনে দিনে এন্ড্রয়েড এপস্ এর চাহিদা বহুগুনে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই আপনি একজন এন্ড্রয়েড এবং এপস্ ডেভলপার হিসাবে অনলাইনে দারুন আয় জনক ক্যারিয়ার গড়ে তুলতে পারেন। যাকে বলে এপস্ ডেভেলপার হয়েও ভালো ইনকাম করতে পারেন।

অনুবাদক হিসাবে চাকুরী করে আয় :

(Transcription Job) আজকাল অনলাইন বাজার গুলোতে হাজারো অনুবাদক হিসাবে জব পোস্ট করা হয়ে থাকে ফলে এই জবটি অনলাইনে অনেক সহজলভ্য। আপনি এক ভাষা থেকে অন্য ভাষায় ট্রান্সক্রিপশন বা অনুবাদ বা পরিবর্তন করেও হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারেন।  আপনি যদি একজন ভালো অনুবাদ হতে পারেন তাহলে আপনার জন্য অনলাইনে জব অপেক্ষা করে আছে।

টেকনিক্যাল সার্পোট দিয়ে টাকা আয় :

(Tech Support Job) বর্তমানে দেখা যাচ্ছে অনলাইনে নিজের নলেজ সেল করে টাকা আয় করছে হাজারো ব্যক্তি। তাদের টেকনিক্যাল নলেজ সাপোর্ট দিয়ে বিভিন্ন কোম্পানিকে সাহায্য করে অনেক টাকা আয় করছে। দেখা যায় বড় বড় কর্পোরেট কোম্পানি গুলো অনেক সাপোর্ট আউটসোর্স করে থাকে। আপনি যদি কোন বিষয়ে টেকনিক্যাল সাপোর্ট দিতে পারেন তাহলে অনলাইনে জব করে আয় করতে পারেন।

ওয়েব অ্যাসিস্টেন্ট হিসাবে চাকুরী করে আয় :

(Web Assistant Job) আপনি যদি ওয়েবসাইট মেনটেনেন্ট করতে অপটিমাইজ করতে বা নিয়মিত পোস্ট করতে পারেন। তাহলে ওয়েব অ্যাসিস্টেন্ট হিসাবে চাকুরী করে আয় করতে পারেন। এসব চাকুরী লোকাল এবং অনলাইন মার্কেটে পাওয়া যায়। যে কাজ গুলো র্ভাচুয়াল অ্যাসিস্টেন্টরাও করে থাকে।

র্ভাচুয়াল অ্যাসিস্টেন্ট হিসাবে আয় :

(Virtual Assistant Job) র্ভাচুয়াল অ্যাসিস্টেন্ট হলো অনলাইনে বিভিন্ন ব্যক্তিকে সাপোর্ট করে কাজ করা। অর্থাৎ তার হয়ে সব কাজ গুলো করে দেওয়া। যেমন- তার ইমেইল মেইনটেন্ট করা, টাইম সিডিউল ঠিক রাখার মত কাজ করা। মোটকথা ব্যস্ত ব্যাক্তিকে সহয়োগীতা করার মাধ্যমে টাকা আয় করা। যে কাজ গুলো অহ রহর হচ্ছে।

অনলাইন সার্ভে ফরম ফিলাপ করে আয় :

(Surveys and Form Filling Job) বিভিন্ন কোম্পানি তাদের বানিজ্যিক বা লোকাল রিপোর্টের জন্য বিভিন্ন সার্ভে করে থাকে। এসব কোম্পানিকে তাদের সার্ভের তথ্য পেতে সাহায্য করার মাধ্যমেও আপনি অনলাইনে আয় করতে পারেন। দেখা যায় বিভিন্ন ওয়েবসাইট জরিপের ফরম ফিলআপ করিয়ে থাকে যেগুলো আপনি আপনার ব্লগ সাইটের মাধ্যমে করিয়ে অনলাইনে ইনকাম করতে পারেন।

ইউজার ফিডব্যাক দিয়ে টাকা আয় :

(Online Focus Group Job) বিশ্বের বড় বড় কোম্পানি গুলো তাদের পণ্য লঞ্জ করার পর ব্যবহার কারীর ফিডব্যাক নেওয়ার জন্য বিভিন্ন ফ্রিলান্সার হয়ার করে থাকে। যাদের কাজ হলে এপস্ সফ্টওয়্যার প্রোগ্রাম টেস্ট করা। যেমন -গুগল ও মাইক্রোসফট সহ বিভিন্ন কোম্পানি ইউসারদের থেকে ফিডব্যাক নিতে চায়। আপনি ফিডব্যাক নিতে তাদের সহায়তা করার মাধ্যমে ইনকাম করতে পারেন।

ই-বুক বানিয়ে বিক্রয় করে টাকা আয় :

(eBooks Job) আপনি যদি এসইও জেনে থাকেন তাহলে মার্কেটিং বিষয়টা আগেই বুঝেছেন। তাই আজকাল অনলাইনে কোন কিছু বিক্রয় করা তেমন কঠিন বিষয় না। তেমনী আপনি বিভিন্ন টিপস্ দিয়ে ছোট ছোট ই-বুক বানিয়ে অনলাইন মাধ্যেমে বিক্রর করে টাকা ইনকাম করতে পারেন।

ভাইরাল কনটেন্ট তৈরী করে টাকা আয় :

(Sharing Content Job) আপনার যদি কনটেন্ট সম্পর্কে ভালো ধারণা থাকে যেমন­- এমন ভিডিও তৈরী করা বা এমন আর্টিকেল রাইটিং করা যেটা পাবালিশ করা মাত্র অনলাইন সেস্যাল মিডিয়াতে ছাড়িয়ে ভাইরাল হয়ে যাবে। তাহলে আপনার জন্য অনলাইনে হাজারও কাজ অপেক্ষা করছে। তাই আপনি এমন কনটেন্ট বানিয়ে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারেন।

মেম্বারশিপ ওয়েবসাইট করে টাকা আয় :

(Membership Sites Job) অনেক ওয়েবসাইট ভিজিট করলে দেখা যায় মেম্বর না হওয়া পর্যন্ত সব কনটেন্ট পড়া যায় না। যার প্রিমিয়াম মেম্বর তারাই সব কনটেন্ট বা আর্টিকেল পড়তে পারে। আপনি যদি কোন বিষয়ে বেশি এক্সপার্ট হয়ে থাকেন তাহলে এমন মেম্বরশিপ ওয়েব সাইট করে অনলাইনে অনেক আয় করতে পারেন।

কনটেন্ট শেয়ার করে টাকা আয় :

(Revenue Sharing Sites Job)  অনলাইনে অনেক ওয়েবসাইট আছে দেখা যায় যেসাইট গুলোতে কনটেন্ট দিলে তাদের রেভিনিউ শেয়ার করে থাকে। আপনি যদি এক্সপার্ট হয়ে থাকেন যেকোনো বিষয়ে তাহলে নিয়মিত সেই সব সাইটে লেখা-লেখি বা কনটেস্ট পাবলিশ করে টাকা উপার্জন করতে পারেন। যেমন- ব্লগার, ইউটিউব, ফেইসবুক ইত্যাদি।

ফটোশপ থাম্বনেইল তৈরী করে আয়:

(Desktop Publishing Job) অনলাইনে দেখা যায় বিভিন্ন ইউটিউবার বা ফেইসবুক পেইজের,  ম্যাগাজিনের ফন্ট পেজ ডিজাইন, পাবলিকেশন্স জন্য  ফটোশপের থাম্বেনেইল তৈরী করে নিয়ে চায়। আপনি যদি ফটোশপ এক্সপার্ট হয়ে থাকেন তাহলে এসব থাম্বেনেইল তৈরী করে অনলাইনে বিভিন্ন ভাবে আয় করতে পারেন।

অনলাইনে পুরাতন বই বিক্রয় করে আয়:

(Selling Old Books Online Job) আপনার ব্যহৃত বা সবার ব্যহৃত পুরাতন বই কেনা-বেচা করতে পারেন। অনলাইনের মাধ্যমে দিয়ে বেশ ভালো আয় করতে পারেন। আপনার নিজের এবং ক্রয় করা পুরাতন বই থাকলে বুকস্কুটার এর মাধ্যমে বই বিক্রি করতে পারেন। তাতে কিছু শর্ত রয়েছে যেমন- আপনাকে IBNS নম্বর ব্যবহার করার পর সেলিং প্রাইসে বিড করতে দেয়া হবে।

অনলাইনে বিক্রয় বিজনেস করে আয় :

(Make Money Selling Gadgets Job) আপনি চাইলে অনলাইনে ইকমার্স বিজনেস করেও আয় করতে পারেন। প্রথমে আপনি নির্দিষ্ট একটা ক্যাটাগরি নিয়ে কাজ শুরু করতে পারেন। যেমন- ইলেকট্রনিক্স হতে পারে, এজন্য আপনাকে নতুন নতুন কম দামে আকর্ষনীয় গ্যাজেট গুলো খুঁজে বের করে বিক্রয় শুরু করতে হবে। তাহলে আপনার মার্কেট তাড়াতাড়ি আগাতে থাকবে। যেভাবে একসময় অনেক আয় করতে পারবেন।

স্ট্রক ট্রেন্ডিডিং বুঝে টাকা আয় :

(Stock Trading Job) আপনি যদি স্ট্রক ট্রেন্ডিডিং ভালো বোঝন যাকে বলে শেয়ার বাজার স্টক। তাহলে বিভিন্ন ইনভেস্টর কে কিছু ইনভেস্ট করিয়ে ভালো মানের আয় ঘরে বসে অনলাইনে করতে পারেন। যেমন ব্রোকারেজ স্টক, মিউচুয়াল ফান্ড ট্রেডিংয়ের মাধ্যমে ইনকাম করতে পারেন।

ফেইসবুক লাইক বিক্রয় করে টাকা আয় :

(Facebook Paid to Like Job) আজ কাল দেখা যায় ফেইসবুকে লাইক, কমেন্ট, শেয়ার বিক্রয় হয় অনেক দামে। যেগুলো আপনিও গ্রুপ তৈরী করে করতে পারেন এবং অনলাইনে ফেইসবুকে অনেক টাকা আয় করতে পারেন। যেসব কাজ বর্তমানে অনেক বাচ্চা লোক করছে।

অনলাইন বিভিন্ন প্রোডাক্ট টেস্ট করে আয় :

(Product Testing Job) অনলাইমার্কেট ভিজিট করলে আপনি বিভিন্ন কোম্পানির জব দেখতে পাবেন যেখানে তারা তাদের কেম্পানির প্রোডাক্ট টেস্টিং করার জন্য জব পোস্ট করেছে। বেশির ভাগ কোম্পানি আপনাকে তাদের প্রোডাক্ট টেস্ট করার জন্য দিবে আপনি ব্যবহার করে তাদের বিস্তারিত ফিডব্যাক জানাবেন।

ডোমেইন হোস্টিং বিক্রয় করে টাকা আয় :

(Domain Name and Hosting Service) আপনি চাইলে অনলাইনে ডোমেন হোস্টিং বিজনেশ করতে পারেন। যে বিজনেসে অনেক লাভজনক হয়ে থাকে। তাই এখন দেখবেন আমাদের দেশে নতুন নতুন ডোমেন হোস্টিং কোম্পানি দেখা যাচ্ছে যেটা আগে ছিলো না। আপনিও ডোমেইন হোস্টিং বিক্রয় করে তাদের মত অনলাইনে ঘরে বসে অনেক টাকা উপার্জন করতে পারেন। এভাবে ডোমেইন নাম ও হোস্টিং সার্ভিস সেল করেও অনলাইনে ইনকাম করতে পারেন।

অনলাইনে গেম খেলে টাকা আয় :

(Playing Online Games Job) বিভিন্ন কেম্পানি তাদের অনলাইন গেম খেলার জন্য জব পোস্ট করে থাকে আসলে তাদের কাজ হলো গেম গুলো সম্পর্কে প্লেয়ারের অনুভুতি ফিডব্যক জানা। এসব জব গুলো নিয়েও আপনি অনলাইন গেম খেলে তাদের ফিডব্যাক বা সেই গেম সম্পর্কে সমস্যা থাকলে জানিয়ে অনেক টাকা আয় করতে পারেন।

সফ্টওয়্যার টেস্টিং জব করে আয় :

(Software Testing Job) অনেক সফ্টওয়্যার কোম্পানি আছে যারা তাদের সফ্টওয়্যার টেস্ট করার জন্য অনেক জব পোস্ট করে থাকে যেগুলো নিয়েও আপনি ঘরে বসে তাদের সাহায্য করে অনেক টাকা অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারেন।

অনলাইনে ইকমার্স ব্যবসা করে টাকা আয় :

(Ecommerce Site Job) বিশ্বের সব থেকে বড় বিজনেস হলো অনলাইনে বিজনেস। যেমন-অ্যামাজন যার নাম হয়ত সবাই শুনেছেন। আপনি চাইলে নিজ শহর থেকে ই-কমার্স বিজনেস শুরু করতে পারেন। প্রথমে আপনি আপনার লোকাল মার্কেটকে টার্গেট করে ই-কমার্স ওয়েবসাইট তৈরী করতে পারেন এবং সহজেই ইনকাম করতে পারেন।

প্রপুলার প্রডাক্ট রিভিউ দিয়ে টাকা আয় :

(Car/Bike Review/Comparison Portal Job) অনলাইনে অনেক কোম্পানি আছে তারা তাদের পণ্যের রিয়েল রিভিউ কিনে নিচে চাই। যেমন- গাড়ি ও বাইক বিক্রয় করা পোর্টাল গুলা অনেক বেশি পপুলার হয়ে থাকে ফলে সেখান থেকে অনেকে নতুন নতুন মডেলর গাড়ি কিনতে চায়। কিন্তু কেনার আগেই তারা রিভিউ দেখে কিনে থাকে সেখানে আপনার কাজ রিভিউ দিয়ে সেল করা মাধ্যমে ইনকাম করা।

কমদামে কিনে বেশি দামে বিক্রয় করে আয় :

(Buying and Selling Job) অনলাইনে অনেক মার্কেট প্লেস আছে যেখান থেকে কমদামে পণ্য কিনে সেই সাইটেই আবার বেশি দামে সেই পণ্য পোস্ট দিয়ে বিক্রয় করে টাকা আয় করতে পারেন। যেটা অনেকেই ঘরে বসে করছে চাইলে আপনিও শুরু করতে পারেন। যেমন- বিক্রয়. কম থেকে শুরু করে ইনকাম করতে পারেন।

ওয়ার্ডপ্রেস ডেভেলপার জব করে আয় :

(WordPress Development Job) অনলাইনে ওয়ার্ডপ্রেস ডেভেলপারদের অনেক কাজ পাওয়া যায়। আপনি যদি একজন ভালো ওয়ার্ডপ্রেস ডেভেলপার হতে পারেন তাহলে অনলাইনে বা অনলাইন মার্কেট ওয়েবসাইটে দেখবেন আপনার জন্য হাজারো জব পোস্ট করা আছে। আপনি শুধু সেখানে একটা ভ্যারিফাইড একটা একাউন্ট করে জব নিয়ে ইনকাম শুরু করতে পারেন।

ওয়ার্ডপ্রেস থিম কাস্টমাইজেশন জব :

(Wp Theme Customization Job) বর্তমানে ওয়ার্ডপ্রেস থিম কাস্টমাইজেশন রিলেটেড জব বিভিন্ন সোস্যাল মিডিয়াতে পোস্ট দেওয়া হয়ে থাকে। আবার অনলাইন মার্কেট প্লেসেও হাজারো জব পোস্ট করা হয়ে থাকে। আপনি চাইলে ভালো একজন ওয়ার্ডপ্রেস থিম কাস্টমাইজার হয়ে অনলাইনে টাকা আয় করতে পারেন।

ওয়ার্ডপ্রেস ওয়েবসাইট ম্যনেজমেন্ট জব :

(WordPress Management Job) অনলাইনে অনেক মার্কেট প্লেসে ওয়ার্ডপ্রেস ওয়েবসাইট ম্যনেজার নিয়োগ দেওয়া হয়। তাদের কাজ হলো ওয়ার্ডপ্রেস ওয়েবসাইট ম্যানেজ করা, কনটেন্ট আপডেট করা, পোস্ট করা ইত্যাদি। আপনি যদি ওয়ার্ডপ্রেস ওয়েবসাইট ম্যানেজ করতে পারেন, তাহলে এসকল জব নিয়ে অনলাইনে আয় শুরু করতে পারেন। 

আপনি যদি অনলাইন থেকে কাজ করে ইনকাম করতে চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই কিছু বিষয়ের দিকে খেয়াল রাখতে হবে। যেমন উক্ত কাজে এক্সপার্ট হওয়া এবং কাস্টমার সন্তুষ্ট করতে হবে। সুতরাং যারা নতুন কাজ শুরু করেছেন তাদের অবশ্যই আগে ভালো ভাবে কাজ শিখে তারপর অনলাইন মার্কেটে এসব রিমোট জবে আসা উচিত। উপরে যে বিষয় গুলো নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে সেগুলোর মধ্যে আপনার পছন্দের যেকোন একটা উপায়ে অনলাইন থেকে ইনকাম শুরু করতে পারেন।

10 Comments

  1. Akash Golder March 19, 2020
    • admin March 19, 2020
  2. Rocky April 4, 2020
    • admin April 5, 2020
  3. What is love May 2, 2020
  4. Sony May 17, 2020
  5. Ripon July 31, 2020

Leave a Reply

DMCA.com Protection Status
error: Content is protected !!