ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই কি, মোবাইল পরীক্ষার নিয়ম

আজ আমরা জানবো ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই দিয়ে মোবাইল পরীক্ষা করার নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত খুটি-নাটি। কারণ মোবাইল সার্ভিসিং করতে হলে ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই এর ব্যবহার জানা অত্যান্ত জরুরী। আপনি যদি ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই সম্পর্কে না জানেন তাহলে মোবাইল সার্ভিসিং বা রিপেয়ারিং করার সময় অনেক সমস্যা ফেইস করবেন, আপনারা হয়ত অনেকেই জানেন- যে ব্যাটারী ছাড়া যেকোন মোবাইল অন করতে হলে ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই প্রয়োজন হয়।

মোবাইল পাওয়ার সাপ্লাই এ একটা ডিজিটাল ডিসপ্লে থাকে, যার দুইটা সেকশানে ভাগ করা থাকে, বামে অ্যাম্পিয়ার সেন্স এবং ডানে ভোল্টেজ রেটিং দেখায়। এজন্য আজ ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। ভবিষ্যতে আপনি যেন একজন দক্ষ মোবাইল টেকনিশিয়ান হতে পারেন। তাহলে চলুন আর কথা না বাড়িয়ে ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই দিয়ে মোবাইল পরীক্ষা করার নিয়ম জেনেনি।

ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই কি:

এখানে ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই হলো এসি কারেন্ট কে ডিসিতে রুপান্তরিত করার যন্ত্র। যে তার আউটপুট নির্দিষ্ট পাওয়ার দিয়ে থাকে, বা ব্যবহৃত ইলেকট্রনিক্স ডিভাইসে তার প্রয়োজন অনুযায়ী সঠিক ভোল্টেজ আউটপুট নেওয়ার যন্ত্রকে ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই বলে। যাকে এডপ্টার বা রেগুলেটেড পাওয়ার সাপ্লাইও বলা যায়। কারেন্ট ও পাওয়ার সাপ্লাই সম্পর্কে আরো জানতে এখানে ক্লিক করুন।

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই কি :

মোবাইল সার্ভিসিং করার যত গুলো টুলস্ আছে তার মধ্যে ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই অন্যতম সার্ভিসিং টুলস্ কিট। এতে ডিজিটাল ডিসপ্লে থাকে যার মাধ্যমে মোবাইলের ইনপুট ভোল্টেজ এবং মোবাইল অন করার জন্য যে ভোল্টেজ প্রয়োজন হয় তা মোবাইলের মাদাবোর্ডের ব্যাটারী কানেক্টরে পাওয়ার সাপ্লাইয়ের সাথে সংযোগ করলে ডিসপ্লেতে রিডিং দেখায়।

আর যদি উলট-পালট করে সংযোগ করেন, তাহলে রিড়িং জিরো জিরো হয়ে যাবে এতে কোন ক্ষতির সম্ভবনা থাকবে না। আপনাকে শুধু দেখতে হবে ভোল্টেজ ৪.৫ এর কম আছে কি-না। কখনো ভূলেও  ৪.৫ বেশি ভোল্টেজ দেওয়া যাবে না।

মোবাইল পাওয়ার সাপ্লাই :

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই হলো মোবাইলের এক্সট্রা পাওয়ার সাপ্লাই। যার মাধ্যমে ডেড, নষ্ট মোবাইল অন করা যায়। ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই কে সংক্ষেপে মোবাইলের পাওয়ার সাপ্লাই বলা হয়। এটা দেখতে নিচের চিত্রের মত। ডিসি মোবাইল পাওয়ার সাপ্লাই এর মাধ্যমে ব্যাটারী ছাড়াও যেকোন মোবাইল অন করে অপারেট করা যায়। এজন্য ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই মোবাইল সার্ভিসিং করতে এবং মোবাইলের সফ্টওয়্যার দিতে ব্যবহার করা হয়।

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই কি মোবাইল পরীক্ষা করার নিয়ম

চিত্র: ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাইয়ের দাম :

বাজারে গেলে বিভিন্ন ধরণের, বিভিন্ন কোম্পানির ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই পেয়ে যাবেন। যার দাম ১২০০-২৫০০/- টাকার মধ্যে হয়ে যাবে। সেখান থেকে আপনার জানা যেকোন একটা পাওয়ার সাপ্লাই কিনে নিতে পারেন। বাকু পাওয়ার সাপ্লাই ১২০০/-টাকা দাম নিবে। তবে পরিচিত কোন সার্ভিসিং এর দোকানে গিয়ে দেখে নিতে পারেন, কোন কোম্পানির পাওয়ার বেশি ভালো চলছে, সার্ভিস ভালো দিচ্ছে ইত্যাদি।

এটাও আমি বলে দিতে পারতাম, তবে আমি একটা কোম্পানির পাওয়ার সাপ্লাই কিনেছি যেটা কয়েক বছর ব্যবহার করার পর দেখছি ভোল্টেজ সেকশানের রাইট ভলিউম টা আর কাজ করছে না। ভলিউম ঠিক আছে কিন্তু সেটা কন্ট্রোল সার্কিট জনিত সমস্যার কারণে কাজ করছে না। যদি বেশি দিন ব্যবহার করতে চান তাহলে সার্ভিস সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে কিনতে পারেন।

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাইয়ের কাজ :

  • ব্যাটারী ছাড়া যেকোন মোবাইল অন করে পরীক্ষা করা যায়।
  • নষ্ট মোবাইল কি কারণে কতটুক কারেন্ট টানছে তা বোঝা যায়।
  • কত ভোল্ট এবং কত অ্যাম্পিয়ার কারেন্ট টানছে তা বোঝা যায়।
  • মোবাইলে কোনো আইসি পার্টস শর্ট আছে কি-না বোঝা য়ায়।
  • যেকোন মাদাবোর্ড সার্কিটের পাওয়ার জনিত অবস্থা বোঝা যায়।

ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই কেন ব্যবহার করা হয় :

  • যেকোন মোবাইল সহজে অন করে পরীক্ষা ও চেকআপ করার জন্য ডিসি ডিজিটাল পাওয়া সাপ্লাই ব্যবহার করা হয়।
  • মোবাইল সার্কিটের পাওয়ার সিস্টেম কি অবস্থায় আছে এবং পাওয়ার জনিত সমস্যা সনাক্ত করণের জন্য ডিসি ডিজিটাল পাওয়া সাপ্লাই ব্যবহার করা হয়।
  • ডিসি ডিজিটাল পাওয়া সাপ্লাইয়ে ডিসপ্লে রিডিং দেখে ডেড, একে বারে নষ্ট, অন না হওয়া মোবাইলের প্রাথমিক অবস্থা পরীক্ষা করে কাজ শুরু করা যায়।
  • ছোট খাটো যেকোন ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস কে তার প্রয়োজনীয় ভোল্টেজ এবং অ্যাম্পিয়ার দিয়ে খুব সহজে ও নিরাপদে ভাবে অন করা যায় এবং চালানে যায়।

ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই এর ব্যবহার :

ব্যাটারী ছাড়া মোবাইল অন করে পরীক্ষা করতে ডিসি ডিজিটাল পাওয়ার সাপ্লাই ব্যবহার করা হয়। যেমন- সিম ছাড়া মোবাইল অন করতে হলে ডিসি পাওয়ার সাপ্লাইয়ে ৩ .৭ ভোল্ট সেটআপ করে মোবাইল অন করতে হবে। আর সিম সহ মোবাইল অন করতে হলে সর্বোচ্চ ৪- ৪ .৫ ভোল্টে সেটআপ করতে হবে, তবে ভূলেও ৪ .৫ ভোল্ট এবং ১- ১ .৫ মিলি অ্যাম্পিয়ার এর বেশি কারেন্ট সেট করে মোবাইল অন করা যাবে না।

যদিও বর্তমানের মোবাইলে এর থেকেও বেশি অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারী দেওয়া থাকে, সেক্ষেত্রে অ্যাম্পিয়ার জানা থাকলে বাড়াতে পারেন কিন্তু ভোল্টেজ কখনো বাড়ানো যাবে না। বাড়ালে পাওয়ার লাগানো মাত্র মোবাইলের যেকোন কম্পোনেন্ট পুড়ে নষ্ট হয়ে বা ডেড হয়ে যেতে পারে।

ডিসি পাওয়ার সাপ্লাইয়ে মোবাইল পরীক্ষার নিয়ম:

  • ভালো মোবাইলের সার্কিটে ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই দিয়ে কানেক্ট করা মাত্র ১, ২, ৩, ৪, ৫, ৬, ৭, ৮ রিডিং দিয়ে মোবাইল চালু হয়ে যাবে আর যদি এর কোন ব্যতিক্রম হয় তাহলে বুঝতে হবে সার্কিটে সমস্যা আছে।
  • মাদারবোর্ড সার্কিটে লাগানোর পর ডিসি পাওয়ার সাপ্লাইয়ের ডিসপ্লে রিডিং ১, ২, ৩, ৪, ৫, হওয়ার পর যদি মোবাইল বন্ধ হয়ে যায় তাহলে বুঝতে হবে মোবাইলে সফ্টওয়্যার দিতে হবে। সফ্টওয়্যার দিলে মোবাইল অন হয়ে যাবে।
  • যদি ১,২ অথবা সরাসরি ৩, ৪, ৫, ৬ রিডিং দিয়ে চালু হয়ে বন্ধ হয়ে যায়, তাহলে বুঝতে হবে মোবাইলে সফ্টওয়্যার জনিত সমস্যা আছে। এমবস্তায় মোবাইলের সফ্টওয়্যার দিয়ে দেখতে হবে। বেশির ভার ক্ষেত্রে সফ্টওয়্যার দিলে মোবাইল অন হয়ে যায় তবে কিছু কিছু মোবাইলের ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম হতে পারে।
  • লাইন দেওয়া মাত্র যদি ৩০, ৪০, ৫০ বা আরো বেশি রিডিং দেয় তাহলে বুঝতে হবে মোবাইলের আইসি বা সিপিইউ খারাপ বা শর্ট আছে। কারণ ৩০, ৪০, ৫০ বা তার বেশি রিডিং দিলে বুঝতে হবে কারেন্ট অতিরিক্ত মাত্রায় মোবাইলে টানছে বা পুড়ছে। এমন হতে পারে মাদাবোর্ডের বা কোন আইসি শর্ট থাকলে। যেমন- অডিও আইসি, সিপিইউ, পাওয়ার আইসি (পি.এ) খারাপ থাকতে পারে।
  • ডিসি পাওয়ার সাপ্লাই মোবাইলের সার্কিটে লাগানোর পর যদি কোন সেন্স বা রিডিং না দেয়, তাহলে বুঝতে হবে সিপিইউ অথবা পাওয়ার আইসি খারাপ হয়েছে। অথবা পাওয়ার সেক্টরে কোন সমস্যা হয়েছে, যার কারণে লাইন পাচ্ছে না। সম্ভব হলে সেটা খুঁজে বের করে মেরামত করতে হবে।

সার্ভিসিং এর সময় করণীয় বিষয় :

আপনাদের সব সময় মনে রাখতে হবে সব মোবাইলের সমস্যা একই হয় না বা একই কারণে হয় না। একাক কোম্পানির মোবাইলের সমস্যা একাক রকম হয়ে থাকে তাই সার্ভিসিং করার সময় দেখে নিতে হবে কোন কোম্পানির মোবাইল আর তার কি কি সমস্যা হয়ে থাকে। আর সার্ভিসিং এর বিভিন্ন আর্টিকেলে আমি বিভিন্ন আইসির কথা বলে থাকি যেগুলো হয়ত আপনি এখনকার অনেক মোবাইলে দেখতে পাবেন না।

কারণ আমি এমনও মোবাইল দেখেছি যেখানে মাত্র একটা আইসি দিয়ে পুরো মোবাইল চলছে তার মানে ঐ এক আইসির মধ্যে অডিও আইসি ভিডিও আইসি সিম আইসি মেমোরী আইসি নেটওয়ার্ক আইসি সব ঢুকানো হয়েছে। আর এমন মাদারবোর্ড দেখা যায় বেশির ভাগ চাইনা মোবাইলে। তাই আপনাদের বলে রাখি সব সময় হয়ত আমার কথা নাও মিলতে পারে। এজন্য আপনি আমার পরামর্শ অনুসরণ করে নিজের টেকনেশিয়ান জ্ঞানকে কাজে লাগিয়ে মোবাইল সার্ভিসিং বা মোবাইল মেরামতি কাজ করবেন।

8 Comments

  1. Murad January 18, 2020
    • admin January 18, 2020
  2. খালিদ January 23, 2020
    • admin January 24, 2020
  3. Madhav Rao January 24, 2020
  4. MD,saiful islam January 30, 2020
    • admin January 31, 2020

Leave a Reply

DMCA.com Protection Status